ইতিহাসে সাক্ষী স্টেডিয়াম, ৫ মর্ডোভিয়া এরিনা

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৩ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ৯ ১৪২৬,   ১৮ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

ইতিহাসে সাক্ষী স্টেডিয়াম, ৫ মর্ডোভিয়া এরিনা

 প্রকাশিত: ১৪:৩৫ ৮ জুন ২০১৮   আপডেট: ০৮:৩৪ ৯ জুন ২০১৮

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

সকল অপেক্ষার পালা শেষ হতে চলেছে আর মাত্র ৫ দিন পর ৬ দিনের দিন পর্দা উঠতে যাচ্ছে ফুটবল বিশ্বের সব থেকে বড় আসর রাশিয়া বিশ্বকাপ ২০১৮। 

ইতিহাসের একুশতম আসরের স্বাগতিক দেশ রাশিয়। বিশ্বকাপকে সামনে রেখে ফুটবল অবকাঠামো আমূল বদলে ফেলেছে রাশিয়া। 

ফুটবল বিশ্বের সব থেকে বড় এই আসরের জন্য জমজমাট বিশ্বকাপ আয়োজনকে সামনে রেখে রাশিয়া তৈরি করেছে কয়েকটি নতুন স্টেডিয়াম,সেই সাথে পুরাতন স্টেডিয়ামগুলোকে সংশোধন করে  তৈরি করা হয়েছে নতুনের মতো করে।

বিশ্বকাপের ম্যাচগুলো মোট ১২টি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে এবং প্রতিটি স্টেডিয়ামে গ্রুপ পর্বের কমপক্ষে ৪টি করে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

যে স্টেডিয়াম গুলোতে বসবে এবারের আকাঙ্খিত বিশ্বকাপ ডেইলি বাংলাদেশের পাঠকদের জন্য তা ধারাবাহিকভাবে তুলে ধরা হবে:-

আজকে তুলে ধরা হলো মর্ডোভিয়া এরিনা স্টেডিয়ামের কথা যা মস্কো থেকে ৫০০ কি.মি দূরে একটি প্রজাতান্ত্রিক দেশ মর্ডোভিয়ায় অবস্থিত।

মর্ডোভিয়া এরিনা

অবস্থান : সারানস্ক

ধারণক্ষমতা : ৪৫,০১৫

৮ লাখ মানুষের একটি প্রজাতান্ত্রিক দেশ মর্ডোভিয়া মস্কো থেকে ৫০০ কি.মি দক্ষিণ-পূর্বে অবস্থিত হলেও  এটি রুশ ফেডারেশনের অংশ। মর্ডোভিয়া এরিনা ২০০৫ সালে স্থানীয় দুইটি ক্লাব একত্রিত হয়ে গঠিত হওয়া এফসি মর্ডোভিয়া সারানস্কের ঘরের মাঠ এবং ২০১৮ ফুটবল বিশ্বকাপের অন্যতম ভেন্যু।

আরো পড়ুন>ইতিহাসের সাক্ষী স্টেডিয়াম, ৪ সামারা এরিনা

বিশ্বকাপের জন্য ধারণক্ষমতা ৪৫ হাজারে উন্নীত করা হলেও বিশ্বকাপের পর ধারণক্ষমতা ২৮,০০০ জনে নামিয়ে এনে স্থায়ী বাসিন্দাদের জন্য জায়গা ছেড়ে দেওয়া হবে। রাশিয়ার ফুটবলে তৃতীয় বিভাগের ক্লাব হলেও এফসি মর্ডোভিয়া সারানস্কের মাঠের আকার দেখার মতো।

গ্রুপ পর্বের ম্যাচ: পেরু বনাম ডেনমার্ক, কলম্বিয়া বনাম জাপান, ইরান বনাম পর্তুগার এবং পানামা বনাম তিউনিসিয়া।

নক-আউট পর্বের ম্যাচ: শূন্য।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস

Best Electronics