আসামিদের ছাড়িয়ে নিতে হামলা, গ্রেফতার ১৩

ঢাকা, শনিবার   ২৫ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪২৬,   ১৯ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

আসামিদের ছাড়িয়ে নিতে হামলা, গ্রেফতার ১৩

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৪৬ ১৬ মে ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে রফতানি তৈরি পোশাক ছিনতাইয়ের অভিযোগে স্থানীয় এক নেতাকে আটকের জেরে উত্তেজিত হয়ে উঠে তার অনুসারীরা। এ ঘটনায় ওই নেতার মুক্তির দাবিতে টায়ারে আগুন জ্বালিয়ে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন তারা।

এসময় তারা বেশ কিছু যানবাহনের ভাঙচুর চালায়। পুলিশ মধ্যে বিক্ষোভকারীদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এসময় পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে পুলিশ ২৭ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে। পরে অভিযান চালিয়ে চারটি মোটরসাইকেল, দেশীয় অস্ত্রসহ দুই দফায় ১৩ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। বৃহস্পতিবার ভোরে উপজেলা ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের কর্নগোপ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

চট্রগ্রাম বন্দর থানার ইন্সপেক্টর তদন্ত মো. আজিম মিয়া জানান, গত দুইদিন আগে কাভার্ডভ্যান ভর্তি তৈরি পোষাক রফতানির উদ্দেশ্যে ঢাকার আশুলিয়ার একটি কারখানা থেকে চট্রগ্রাম বন্দরের দিকে যায়। মালামাল বন্দরে পৌঁছালে জানা যায়, গাড়ি থেকে ৩০ লাখ টাকার কাপড় সরিয়ে ফেলা হয়েছে। গাড়ির চালকও হেলপারকে জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানায়, রূপগঞ্জ উপজেলার নবনির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যান ভিপি সোহেলের লোকজন চালকের সহায়তায় রূপগঞ্জের কর্নগোপ এলাকার জৈব সার কারখানার ভিতর গাড়ি ঢুকিয়ে মালামাল সরিয়ে নিয়েছেন।

তিনি আরো জানান, এ ঘটনায় কারখানার ব্যবস্থাপক কায়সার রহমান চট্রগ্রাম বন্দর থানায় মামলা দায়ের করলে এসআই(তদন্ত কর্মকর্তা) রবিউল ইসলাম নারায়ণগঞ্জ জেলা গোয়েন্দা পুলিশ ও রূপগঞ্জ থানা পুলিশের সহায়তায় বুধবার রাত দেড়টার দিকে মিরকুটিরছেও এলাকা থেকে মামলার আসামি স্থানীয় নেতা সজিবসহ তার সহযোগী মনিরুল ইসলাম, নবিরুদ্দিন, জৈব সার কারখানার সিকিউরিটি তোতা মিয়া, সুমন, ও সিপন হোসেন নামে ছয়জনকে গ্রেফতার করেন। এদিকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে রাত ৩টার দিকে দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে ৬০-৭০ জন ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের কর্নগোপ এলাকায় অবস্থান নেয় সজীবের সহযোগীরা। তারা সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করে। এসময় তার ৮-১০টি যানবাহন ভাঙচুর করে।

খবর পেয়ে রূপগঞ্জ থানার ওসির নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে বিক্ষোভকারীরা পুলিশের উপর চড়াও হয়। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ২৭ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে। এ ঘটনায় পুলিশ ব্লক রেইট দিয়ে দেশীয় অস্ত্রসহ মোবারক হোসেন, ওয়াদুদ, রাশেদুল, হাসান,  ইরফান, রাহাত ও সাইদুলকে গ্রেফতার করেন। এসময় তাদের ব্যবহৃত চারটি মোটরসাইকেল আটক করা হয়।

রূপগঞ্জ থানার ওসি(তদন্ত) এমদাদুল হক বলেন, সড়ক অবরোধ করে যানবাহন ভাঙচুরের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে ২৭ রাউন্ড ফাকা গুলি ছুঁড়ে। ঘটনাস্থল থেকে দেশীয় অস্ত্র ও চারটি মোটরসাইকেলসহ সাতজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম
 

Best Electronics