Alexa আশুগঞ্জ হানাদার মুক্ত দিবস আজ

ঢাকা, রোববার   ১৯ জানুয়ারি ২০২০,   মাঘ ৫ ১৪২৬,   ২৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১

Akash

আশুগঞ্জ হানাদার মুক্ত দিবস আজ

আশুগঞ্জ (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৩:৩০ ১১ ডিসেম্বর ২০১৯   আপডেট: ০৯:১২ ১১ ডিসেম্বর ২০১৯

ছবি : ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি : ডেইলি বাংলাদেশ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ মুক্ত দিবস আজ। ১৯৭১ সালের ১১ ডিসেম্বর স্বাধীন বাংলাদেশের লাল-সবুজের পতাকা উড়িয়ে আশুগঞ্জকে হানাদার মুক্ত ঘোষণা করা হয়েছিল। 

১৯৭১ সালের ৯ ডিসেম্বর আশুগঞ্জ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কাছে পাক বাহিনীর সঙ্গে ব্যাপক যুদ্ধ হয় মুক্তি ও মিত্র বাহিনীর। এ সময় মুক্তি ও মিত্র বাহিনীর প্রায় তিন শতাধিক সেনা সদস্য নিহত হন। এসময় পাক বাহিনীর প্রায় শতাধিক সৈন্য মারা যায়। 

১০ ডিসেম্বর মিত্রবাহিনী ও বেঙ্গল রেজিমেন্ট সারা রাত প্রস্তুতি নিয়ে ভোরে আশুগঞ্জ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে রেস্ট হাউজে অবস্থান করে। পরে ব্যাপক যুদ্ধা হলে পাক বাহিনী রাতে আশুগঞ্জ থেকে পাশ্ববর্তী ভৈরবে পালিয়ে যায়। 

পাক বাহিনী আশুগঞ্জ থেকে পালিয়ে ভৈরব যাওয়ার সময় মেঘনা নদীর উপর নির্মিত রেল সেতুর একাংশ ডিনামাইট দিয়ে উড়িয়ে দেয়। 

এতে সেতুর ২টি স্প্যান ভেঙে নদীতে পড়ে যায়। পরে ১১ ডিসেম্বর সকালে বিনা বাধায় আশুগঞ্জ বাজার এলাকা দখল করে মিএ বাহিনী ও মুক্তিযোদ্ধারা। এতে আশুগঞ্জ শত্রু মুক্ত হয়।

ওই যুদ্ধে নেতৃত্ব সুসংগঠিত করতে যোগ দিয়েছিলেন তৎকালীন লে. কর্নেল কেএম সফিউল্লাহ, লে. কর্নেল মোর্শেদ, মেজর নাসির, ক্যাপ্টেন মো. নাসিম, ক্যাপ্টেন মতিনসহ আরো অনেকে। 

আশুগঞ্জকে মুক্ত করতে গিয়ে পাক হানাদারের সঙ্গে যুদ্ধে শহীদ হয়েছিলেন সুবেদার সিরাজুল ইসলাম, ল্যান্স নায়েক আব্দুল হাই ও সিপাহী কপিল উদ্দিন প্রমুখ। 

পাক বাহিনী বিভিন্ন এলাকা থেকে লোকজন ধরে এনে সাইলোর কাছে, মেঘনা নদীর উপর নির্মিত রেল সেতুর কাছে, ধানের আড়তের মাঠে, মাছ বাজারে, রেল স্টেশনের কাছে আশুগঞ্জের ৫টি স্পটে পাখির মতো গুলি করে হত্যা করে। স্বাধীনতার ৪৭ বছর পরও আশুগঞ্জের ৫টি স্পটে কোনো স্মৃতি স্তম্ভ গড়ে উঠেনি। 

দিবসটি উপলক্ষে বুধবার মুক্তিযোদ্ধা ও উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের উদ্যোগে আলোচনা সভা ও র‌্যালির আয়োজন করেছে। 

সকাল ৯টায় গোলচত্বরে মুক্তিযোদ্ধের সম্মুখ সমর স্মৃতিস্তম্ভে পুস্পস্তবক অর্পণ, একই স্থান থেকে সাড়ে ৯টায় র‌্যালি বের হয়ে উপজেলা পরিষদে গিয়ে শেষ হবে। 

সকাল সাড়ে ১০টায় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে আলোচনা সভা হবে। এতে ইউএনও ও উপজেলা কমান্ড কাউন্সিলের প্রশাসক নাজিমুল হায়দার সভাপতিত্ব করবেন। 


 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ/টিআরএইচ