ঢাকা, শুক্রবার   ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ৯ ১৪২৫,   ১৬ জমাদিউস সানি ১৪৪০

আমিরের হাতে ‘মহাভারত’, কী হতে চলেছে?

বিনোদন ডেস্ক

 প্রকাশিত: ১৫:০৩ ৫ আগস্ট ২০১৮   আপডেট: ১৫:০৩ ৫ আগস্ট ২০১৮

আমির খান

আমির খান

আমির খান বর্তমানে ব্যস্ত রয়েছেন তার অভিনীত ছবি ‘ঠগস অফ হিন্দোস্তান’ নিয়ে। চলতি বছর, নভেম্বরের সাত তারিখ ছবিটি মুক্তি পাওয়ার কথা রয়েছে। তবে এই ছবিটির মুক্তির আগেই কী বড় কোনো প্রজেক্টের কথা ঘোষণা করতে চলছেন আমির? সম্প্রতি বলিউড জুড়ে এই জল্পনাই চলছে।

বলিউডে ‘মহাভারত’ বানানোর স্বপ্ন অনেকেরই রয়েছে। একবার খোদ কিং খান নিজে তার মহাভারত বানানোর স্বপ্নের কথা জানিয়েছিলেন। যদিও পরক্ষণেই আবার শাহরুখ স্বীকার করে নেন মহাভারত আমার স্বপ্নের প্রজেক্ট হলেও এটা বানানোর কাজ মোটেও সহজ নয়। 

পাশাপাশি মহাভারত বানানোর ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলেন খোদ ‘বাহুবলী’ পরিচালক রাজামৌলি। ‘বাহুবলী ২’ মুক্তির ঠিক পরপরই রাজামৌলি তার মহাভারত বানানোর ইচ্ছার কথা জানান।

এমনকি শোনা যায়, তিনি নাকি মহাভারতে অভিনয় করার জন্য আমিরের সঙ্গে কথাও বলে ফেলেছেন। আমির খান নাকি মহাভারতে কাজ করার বিষয়ে উৎসাহ প্রকাশ করেছেন। 

বাহুবলী ২ মুক্তির পর আমির বলেন, আমি রাজামৌলির কাজের ভীষণ ভক্ত। যদি তিনি মহাভারত বানাতে চান, তাহলে আমি কৃষ্ণের চরিত্রে অভিনয় করতে ইচ্ছুক। কৃষ্ণ বা কর্ণের চরিত্র দুটিই আমার পছন্দের। তবে এই দুটোর মধ্যে বাছতে বললে আমি কৃষ্ণ চরিত্রটিই বেছে নেব।

শনিবারই মুম্বই বিমানবন্দরে মহাভারত হাতে ধরা পড়েন আমির। আমিরের হাতে যে বইটি দেখা যায় সেটি হল ‘দ্যা মহাভারত অফ ভীষ্ম’। আর এরপরেই বলিউডের সব থেকে কাঙ্খিত প্রজেক্ট মহাভারত তৈরির বিষয়ে জল্পনা শুরু হয়েছে। একসঙ্গে একাধিক প্রশ্ন উঠে আসতে শুরু করেছে। 

যেমন, আমির কি ইতোমধ্যেই ‘মহাভারত’ বানানোর তোরজোড় শুরু করে দিয়েছেন? তিনি কি নিজেই ‘মহাভারত’ বানাচ্ছেন, নাকি এটির নির্মাতা অন্যকেউ, আমির শুধুই অভিনয় করবেন। আমির যদি ছবিতে অভিনয় করেন তাহলে কি তাকে পিতামহ ভীষ্মের চরিত্রে দেখা যাবে নাকি অন্য কোনো চরিত্র?

প্রসঙ্গত, গত মার্চ মাসেই শোনা গিয়েছিল খোদ বিজনেস টাইকুন মুকেশ আম্বানি নাকি আমিরকে মহাভারত বানানোর জন্য ১০০০ কোটি টাকা দিতে রাজি হয়েছেন। 

যদিও মুকেশ আম্বানি সিনেমা নির্মাণের জন্য নতুন কোনো প্রযোজনা সংস্থা খুলছেন নাকি তার দুই মিডিয়া সংস্থা জিও বা ভায়াকম ১৮-এর ব্র্যান্ডেই এই ছবিটি বানাতে তিনি উৎসাহী, সেকথা অবশ্য স্পষ্ট হয়নি। 

তবে এটুকি বোঝা গেছে বলিউডে মহাভারত বানাতে উৎসাহী খোদ মুকেশ আম্বানিও। 

ডেইলি বাংলাদেশ/টিএএস