Alexa আত্মহত্যার আগে মেয়েটি লিখেছিল, ‘আল্লাহ বিচার করবে’

ঢাকা, শুক্রবার   ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০,   ফাল্গুন ৮ ১৪২৬,   ২৬ জমাদিউস সানি ১৪৪১

Akash

আত্মহত্যার আগে মেয়েটি লিখেছিল, ‘আল্লাহ বিচার করবে’

ডেস্ক নিউজ ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৪:২০ ১২ জুন ২০১৯   আপডেট: ১৪:৪৬ ১২ জুন ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

‘মানুষের চরিত্র একবার চলে গেলে তা আর ফিরে পাওয়া যায় না। সত্যি বলছি, আমি ওকে ছাড়া বাঁচবো না। তাই সবাইকে ছেড়ে যাচ্ছি। আম্মু আমি আপনাকে খুব ভালোবাসি। আমার মৃত্যুর একমাত্র কারণ হলো রায়হান।’

মৃত্যুর আগে খাতার একটি পৃষ্ঠায় এ কথাগুলোই লিখে গিয়েছিল সুমাইয়া খাতুন নীলুফা। মঙ্গলবার দুপুরে যশোর সদর উপজেলার পাঁচবাড়িয়া গ্রাম থেকে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। 

নীলুফা বাহাদুরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির বাণিজ্য শাখার ছাত্রী ছিল।

খাতায় নীলুফা আরো লেখে, ‘আল্লাহ রায়হানের বিচার করবে। রায়হান কোরআন মাথায় নিয়ে মিথ্যা বলেছে। জানি ও সাজা পাবে, কিন্তু আমি ওটা দেখতে পারবো না। কারণ আমি সবার চোখে খারাপ হয়ে বাঁচতে পারবো না।’

মেয়েটির পরিবারের দাবি, একই এলাকার বিল্লাল হোসেনের কলেজপড়ুয়া ছেলে রায়হানের সঙ্গে নীলুফার প্রেমের সম্পর্ক ছিল। সেই সম্পর্কের জেরে নীলুফা দুই মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। পরে বিয়ের কথা বলায় রায়হান তাকে প্রত্যাখ্যান করলে নিলুফা ঘরের আড়ার সঙ্গে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক সালেহীন কবীর জানান, গলায় ফাঁসের কারণে তার মৃত্যু হয়েছে। তবে সে অন্তঃস্বত্ত্বা ছিল কি না তা ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনের পরে জানা যাবে।

যশোর উপশহর ফাঁড়ির এসআই ফারুক হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় যশোর কোতোয়ালি থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিআরএইচ