Exim Bank
ঢাকা, সোমবার ২১ মে, ২০১৮
iftar
বিজ্ঞাপন দিন      

আওয়ামী লীগের জনসভার বিরিয়ানি খেয়ে অসুস্থ শতাধিক

 ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২২:০৮, ১৬ মে ২০১৮

১৮১ বার পঠিত

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ঝিনাইদহের মহেশপুরে আওয়ামী লীগের পারভীন তালুকদার মায়ার জনসভার বিরিয়ানি খেয়ে শতাধিক অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুরে স্থানীয় হাইস্কুল মাঠে আওয়ামী লীগ আয়োজিত সভায় এসব বিরানী পরিবেশন করা হয়। আহতদের মধ্যে মহেশপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেই চিকিৎসা নিয়েছে প্রায় ৫০ জন। অন্যান্যরা চৌগাছা, জীবননগর ও কোটচাদপুর হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছে। বেশ কয়েকজন বেশি অসুস্থ হওয়ায় তাদের যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে।

অসুস্থদের মধ্যে মহেশপুর পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুস সত্তার, বাজিপোতা গ্রামের পাপিয়া,তানিয়া,সাতপোতা গ্রামের পরশ, জলিলপুর গ্রামের রুমি,রামচন্দ্রপুর গ্রামের সুফিয়া,হাবিবুর, কামাল, জামাল, সুন্দপুরগ্রামের বিথি আক্তার,পান্তপাড়া গ্রামের হৃদয়,বেশবাড়ি গ্রামের আশাদুল, গাড়াবাড়িয়া গ্রামের বুলবুলী, জলিলপুর গ্রামের দিতি আক্তার, বিল্লাল,নাইম, নাটিমা গ্রামের আশাদুর রহমান, রামচন্দ্রপুর গ্রামের তানিয়া, আনিচুর রহমান, যাদবপুর গ্রামের লাকি আক্তার, গোপালগপুর গ্রামের রুহুল আমীন, মহেশপুর শহরের জান্নাতুল, বলিভদ্রপুর গ্রামের আকিদুর রহমান, কানাইডাঙ্গা গ্রামের ইকরামুল,বগা গ্রামের শাহিন, গোপালপুর গ্রামের রেজা, মহেশপুরের আমিনুর, নাদিম, পাতিবিলা গ্রামে সাজেদা, ভালাইপুর গ্রামের সাইদুল, রামচন্দ্রপুর গ্রামের সংকর,যগিহুদা গ্রামের কুলসুম, জলিলপুর গ্রামের জাহানারা খাতুন।

মহেশপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন পৌর আওয়ামী লীগের ৬ নং ওয়ার্ডের সভাপতি আব্দুস সাত্তার বলেন দলীয় কর্মী সভায় বিতরণ করা বিরিয়ানী খেয়ে রাত ১০ টা থেকে ডায়রিয়া শুরু হয়েছে তার।

উপজেলার রামচন্দ্রপুর গ্রামের আল আমীন ও তার চাচা মতিয়ার রহমান একই কথা বলেন। কেউ কেউ বিরিয়ানীর প্যাকেট বাড়িতে নিয়ে যায় এবং স্বপরিবারে খেয়েছেন। সব পরিবারের সকলেই বিষক্রীয়ার শিকার হয়েছেন বলে হাসপাতাল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন।

অপর দিকে মহেশপুর থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ময়জুদ্দিন হামিদ ভিন্ন কথা বলেছেন।

তিনি জানান, মঙ্গলবার মহেশপুর হাইস্কুল মাঠে এক সভার আয়োজন করা হয়। সভা শেষে উপস্থিত দলীয় লোকজনকে বিরিয়ানী পরিবেশন করা হয়। তিনি দাবি করেন পরিবেশন করা বিরিয়ানী খেয়ে কিউ অসুস্থ হয়েছেন এমন খবর জানা নেই। তবে শুনেছি ২০/২৫ জন ব্যক্তি ডায়রিয়া আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

এ প্রসঙ্গে পারভীন তালুকদার মায়া বলেন প্রতিপক্ষরা গুজব ছড়াচ্ছে। খাবারে বিষক্রীয়া হয়ে অসুস্থ্য হওয়ার খবর সঠিক নয় বলে দাবি করেন তিনি।

পারভীন তালুকদার মায়া জানান, তিনি মঙ্গলবার মহেশপুরে সমাবেশ করেছেন। সেখানে উপস্থিত নেতাকর্মীদের দুপুরের খাবার দেওয়া হয়। শুনেছি রাতে বেশ কয়েকজন অসুস্থ হয়ে পড়েছে। গতকাল প্রচন্ড গরম পড়েছে। তেল- ঘি যুক্ত খাবার খেয়ে অথবা গ্যাস্টিকের সমস্যায় এই সব নেতাকর্মী অসুস্থ হতে পারে।

মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের কর্মকর্তা ডা. নাসির জানান, মঙ্গলবার রাত ৯ টার পর থেকে পেটে ব্যাথা,বমি ও পাতলা পায়খানা সংক্রান্ত অর্ধ শতাধিক রোগীকে চিকিৎসা দেওয়া হয়। তিনি বলেন রোগীরা জানিয়েছে, তারা বিরিয়ানী খেয়েছিলো। খাবার খেয়ে এ সমস্যা হতে পারে। তিনি বলেন কয়েকজনকে যশোরে রেফার্ড করা হয়েছে।

এদিকে ঝিনাইদহের সিভিল সার্জন ডা. রাশেদা সুলতানা খাদ্যে বিষক্রীয়ার এ খবর নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানিয়েছেন গতকাল স্থানীয়ভাবে পরিবেশন করা খাবার থেকে এ ঘটনা ঘটেছে। ওই খাবার খেয়ে দলে দলে ডায়ারিয়া আক্রান্ত হয়ে পড়ে বলে জানান তিনি। সিভিল সার্জনের দেওয়া তথ্য মতে পরিবেশন করা খাবার পচা ও বাসি ছিল বিধায় বিষক্রীয়া হয়েছে । প্রাথমিক ভাবে এমন ধারনা করা হচ্ছে, অসুস্থ রোগীদের সুচিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলেও জানান সিভিল সার্জন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরআর

সর্বাধিক পঠিত