Exim Bank
ঢাকা, সোমবার ২১ মে, ২০১৮
iftar
বিজ্ঞাপন দিন      

অ্যাপেই বিকাশের লেনদেন

 নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:৫৭, ১৫ মে ২০১৮

১৬৯ বার পঠিত

অ্যাপেই  বিকাশের লেনদেন

অ্যাপেই বিকাশের লেনদেন

লেনদেনকে আরো সহজ করতে মোবাইল আর্থিক সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান বিকাশ এনেছে বিশ্বমানের মোবাইল অ্যাপ।মঙ্গলবার  রাজধানীর  হোটেল সোনারগাওয়ে এক  সংবাদ সম্মেলনে অ্যাপটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়।
 
এই  অ্যাপটি গত ২৫ এপ্রিল গুগল প্লে স্টোরে দেয়ার পর এ পর্যন্ত ১৪ লাখ গ্রাহক ডাউনলোড করেছে বলে বিকাশ কর্মকর্তারা জানান।
 
অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন  বিকাশের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) কামাল কাদির, প্রধান বিপণন কর্মকর্তা (সিএমও) মীর নওবত আলীসহ অন্য কর্মকর্তারা ।
 
বিকাশ সিইও বলেন, গত কয়েক বছর ধরে ইটারনেট সুবিধার বাইরে থাকা সাধারণ মানুষ যারা ফিচার ফোন ব্যবহার করেন, তারাসহ সব গ্রাহক ইউএসএসডি (আনস্ট্রাকচার্ড সাপ্লিমেটারি সার্ভিস ডাটা) পদ্ধতিতে বিকাশের নানান সেবা গ্রহণ করছিলেন। এই পদ্ধতিতে লেনদেন সুবিধা কার্যকর রাখতে স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের আরো সহজ, দ্রুত ও নিরাপদ সেবা দিতেই যুক্ত হয়েছে নানা সৃজনশীল ফিচার সমৃদ্ধ বিকাশ অ্যাপ।
 
তিনি বলেন, প্রায় দেড় বছর ধরে বিকাশের টেকনিক্যাল টিম অ্যাপটি নিয়ে কাজ করেছেন। বৃদ্ধ থেকে শুরু করে অর্ধ শিক্ষিতরাও  অ্যাপটি পরিচালনা করতে পারবে। 
বিকাশের  সিএমও মীর নওবত আলী জানান, ২৫ এপ্রিল গুগল প্লে স্টোরে দেয়ার পর এ পর্যন্ত ১৪ লাখ গ্রাহক অ্যাপটি ডাউনলোড করেছেন।
 
অ্যাপটির বিভিন্ন ফিচার তুলে ধরে নওবত আলী বলেন, খুব স্বল্প অক্ষরজ্ঞান সম্পন্ন গ্রাহকের কথা বিবেচনায় রেখেই বিকাশ অ্যাপে ইংরেজি ছাড়াও বাংলায় ব্যবহারের সুবিধা রাখা হয়েছে। ছবি ও লেখা সমৃদ্ধ এ অ্যাপে ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্স বা মৌখিক নির্দেশনার সুবিধা রয়েছে। যে কোনো লেনদেনের জন্য কী পদক্ষেপ নিতে হবে তা সুনির্দিষ্ট ধাপে গ্রাহকের পছন্দ অনুযায়ী বাংলা বা ইংরেজি ভাষায় নির্দেশনা দেয় বিকাশ অ্যাপ।
 
‘অ্যাপে লেনদেনের সময় প্রাপকের নম্বর টাইপ করার প্রয়োজন নেই। বিকাশ অ্যাপে সেন্ড মানি, বাই এয়ারটাইম (মোবাইল লেন্স রিচার্জ) এবং রিকোয়েস্ট মানি লেনদেনের সময় সরাসরি মোবাইলের কন্ট্যাক্ট লিস্ট/ফোনবুক থেকে নম্বর নেয়া যাচ্ছে। ফলে ভুল হওয়ার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে।’

বিকাশ অ্যাপে নিরাপত্তাকেই সর্বাধিক গুরুত্ব দেয়া হয়েছে। পিন (গোপন নম্বর) ব্যবহার ছাড়া বিকাশ অ্যাপের কোনো কার্যক্রম সম্ভব নয়। প্রতিবার অ্যাপ ব্যবহারের শুরুতেই একবার পিন (গোপন নম্বর) দিতে হবে এবং যে কোনো ধরনের লেনদেন করতে আবারো পিন ব্যবহার করতে হবে। সুতরাং, পিন গোপন রাখলে অ্যাপের মাধ্যমে গ্রাহকের বিকাশ অ্যাকাউন্ট থাকবে সর্বোচ্চ নিরাপদ ও সুরক্ষিত। এমনকি মোবাইল হারিয়ে গেলেও বিকাশ অ্যাকাউন্টের টাকা সুরক্ষিত থাকবে।’ এসএমএস ছাড়াও অ্যাপের মাধ্যমেও সব লেনদেনে নোটিফিকেশন পাওয়া যাবে। গ্রাহক চাইলে প্রিয়জনকে বিকাশ অ্যাপ ব্যবহারের জন্য রেফারও করতে পারবেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসএস

সর্বাধিক পঠিত