অসহায়দের ঈদ এবার পাকা বাড়িতে

ঢাকা, বুধবার   ২৭ মে ২০২০,   জ্যৈষ্ঠ ১৩ ১৪২৭,   ০৩ শাওয়াল ১৪৪১

Beximco LPG Gas

অসহায়দের ঈদ এবার পাকা বাড়িতে

আব্দুল লতিফ মিঞা, বাঘা (রাজশাহী) ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২২:১১ ১৯ মে ২০২০   আপডেট: ২২:১২ ১৯ মে ২০২০

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ঈদের আগেই রাজশাহীর বাঘার অসহায় ১৯ পরিবারে কাছে ধরা দিয়েছে এক নতুন স্বপ্ন। তারা মাথা গোঁজার ঠাঁই হিসেবে পেয়েছেন পাকা বাড়ি। 

অল্প বৃষ্টিতেই যেসব পরিবারের জীর্ণ ঘরের চাল গড়িয়ে পানি পড়তো। অনেকের ছিল না মেরামতের ক্ষমতা। এমন পরিবারের কাছে নতুন পাকা বাড়ি মানেই স্বপ্ন। প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে পাকা বাড়ি পেয়ে উপজেলার অসহায় মানুষগুলোর খুশির যেন শেষ নেই। এবার নতুন পাকা বাড়িতে ঈদ করবে তারা। 

২০১৯-২০ অর্থ বছরে গ্রামীণ অবকাঠামো রক্ষণাবেক্ষণ (টিআর-নগদ অর্থ) কর্মসূচির আওতায় গৃহহীনদের জন্য দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ নির্মাণ কর্মসূচির আওতায় অসহায়দের সেমি পাকা বাড়ি করে দেয়া হয়েছে। 

চলতি অর্থ বছরে এ উপজেলার ৬টি ইউপিতে ১৯টি অসহায় পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে পাকা বাড়ি করে দেয়া হয়েছে। ২ লাখ ৯৯ হাজার ৮৬০ টাকা ব্যয়ে প্রতিটি বাড়ি নির্মাণ করা হয়েছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতর বাস্তবায়ন করছে ঘরগুলো। ঘরে দুটি থাকার রুমসহ একটি বাথরুম, রান্না ঘর ও ছোট্ট একটি বারান্দা রয়েছে। সুন্দর ডিজাইনের ঘরে রঙিন টিন ও রং করে দেয়া হয়েছে। যা দূর থেকে নজর কাড়ে সবার। এবারের ঈদ কাটবে তাদের নতুন ঘরেই।

সম্প্রতি নতুন ঘরে উঠেছেন উপজেলার ২ নম্বর গড়গড়ি ইউপির ব্রাম্মনডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা মুনতাজ উদ্দীনের স্ত্রী রাহেলা বেওয়া। ইউএনও শাহিন রেজা  ও ইউপি চেয়ারম্যান রবিউল ইসলাম পরিবারটিকে নতুন ঘরে তুলে দিয়ে আসেন। 

রাহেলা বেওয়া বলেন, পাকা বাড়িতে থাকার কথা কখনো স্বপ্নেও ভাবিনি। 

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসের উপসহকারী হেকমত আলী বলেন, চলতি অর্থ বছরে ১৯টি পরিবারের প্রত্যেকে প্রায় ৩ লাখ টাকা মূল্যের পাকা বাড়ি পেয়েছে। 

বাঘার ইউএনও শাহিন রেজা বলেন, প্রান্তিক অসহায় জনগণের জন্য প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ উদ্যোগে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের অধীনে তৈরি করে দেয়া হচ্ছে দুর্যোগ সহনীয় ঘর। অসহায় পরিবারগুলোর কাছে এ যেন বেঁচে থাকার নতুন অবলম্বন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ